ব্রেকিং নিউজ ::
শিবপুরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু স্মৃতিচারণ ও দোয়া মাহফিল শিবপুরে ১৫ আগষ্ট জাতীয় শোক দিবস উদযাপন উপলক্ষে যুবলীগের প্রস্তুতি সভা শিবপুরে ব্যবসায়ীকে ষড়যন্ত্রমূলক মিথ্যা মামলা দেওয়ায় এলাকাবাসীর প্রতিবাদ সভা শিবপুর উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে বঙ্গমাতার  ৯২তম জন্মবার্ষিকী পালন জৈন্তাপুরে প্রাইভেট কার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পিতা ও শিশু কন্যার মৃত্যু,আহত ৩ শিবপুরে পুটিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী কৃষকলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত শিবপুরে হরিহরদী হাই স্কুল এন্ড কলেজের পক্ষ থেকে এমপি মোহনকে সংবর্ধনা শিবপুরে বিএনপির সাবেক মহাসচিব মান্নান ভূঁইয়ার ১২তম মৃত্যু বার্ষিকী পালন বৃক্ষরোপনে জাতীয় পুরস্কার পেল কাজী মফিজ উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয় মহাত্মা গান্ধী গোল্ডেন অ্যাওয়ার্ড পেলেন আলহাজ্ব মাহফুজুল হক টিপু
ঝিনাইদহ শৈলকুপা থানার মির্জাপুর ইউনিয়নে একটি খেলার মাঠ চেয়ে আবেদন

ঝিনাইদহ শৈলকুপা থানার মির্জাপুর ইউনিয়নে একটি খেলার মাঠ চেয়ে আবেদন

০২-১১-২০২১.
বরাবর,
সম্পাদক
—————
বিষয়:সংযুক্ত পত্রটি প্রকাশের জন্য আবেদন।
জনাব,আপনার বহুল প্রচারিত” —————————পএিকায় প্রকাশের জন্য “খেলার মাঠ স্থাপনের আবেদন” শিরোনামে একটি পত্র পাঠালাম।এই জনগুরুত্বপূর্ন চিঠিটি প্রকাশ করলে বাধিত হব।
বিনীত
সৌরভ হোসেন।
শৈলকুপা,ঝিনাইদহ।

“খেলার মাঠ স্থাপনের আবেদন”
——————————————–

ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা থানার ২ নং মির্জাপুর ইউনিয়নের গোলক নগর গ্রাম একটি সমৃদ্ধ জনবহুল ও খেলাপ্রিয় এলাকা।এখানে একটি বাজার ও একটা প্রাইমারি স্কুল আছে।কিন্তু দুঃখের বিষয় যে,এ গ্রামে কোনো এমনকি আশেপাশের (৭-৮) টি গ্রাম,যেমন:কানাপুকুরিয়া,রাজনগর,চড়িয়া,চর-চড়িয়া,আলমডাঙ্গা,চর-গোলক নগর,পরমানান্দ পুর,সাধুখালী,যোগিপাড়া,চড়পাড়া এমনকি গোলক নগর সকল গ্রামের মাঝে অবস্থান করার পরও একটা খেলার মাঠ নাই।
ক্রিকেট বা ফুটবল যাই বলি প্যাক্টিস ব্যাতিত (১০-১৫) কি:মি: দূরে গিয়ে ম্যাচ খেলতে হয়।আমাদের গ্রামে অনেক ভালো খেলোয়ার আছে কিন্তু মাঠ না থাকার কারনে তাদের সঠিকভাবে তৈরি করা যায় না।এমন কি তারা অবসর সময়ে খেলতে যাবে,কিন্তু কোনো মাঠ না না থাকার কারনে তারা মোবাইলের অনলাইন গেমে আসক্ত হচ্ছে।অবশেষে দেখা যায় তারা নেশাগ্রস্থ হয়ে অনেক খারাপ কাজে লিপ্ত হচ্ছে।এমনকি এটা আমাদের আশেপাশের গ্রামেও হচ্ছে।বোড অফিস আমাদের গ্রামের মাটিতে হওয়ার কারনে সকলের সাথে সংযোগ লাইন আমাদের অনেক ভালো কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের বিষয়,খেলার কোনো মাঠ নাই।

আমাদের গ্রামে খেলাভক্ত এমন কিছু পাগল আছে, যারা সবসময় খেলা নিয়েই ব্যস্ত থাকে।ভবিষ্যত প্রজন্ম যেন নষ্ট না হয় সেজন্য তারাই প্রতিবছর ২ টা সময় অনেক বড় ফুটবল-ক্রিকেট টুর্নামেন্টের আয়োজন করে থাকে।তাও সেটা সম্ভব হয় যখন মাঠের সকল ধার যখন কৃষকের বাড়িতে উঠে যায়,ঠিক তখনি খেলাভক্ত পাগল শুরু করে দেয় ধানের মাঠেই টুর্নামেন্ট।এখানে আশেপাশের গ্রামের অনেক খেলোয়ার এই টুর্নামেন্টে অংশ গ্রহন করেন।আমাদের গ্রাম সহ পাশের সকল গ্রামের একই অবস্তা তারা সঠিকভাবে খেলা করতে পারে না।আমি আশা করি আমাদের গ্রামে একটা খেলার মাঠ হলে ভবিষ্যতে আমাদের গ্রাম থেকে অনেক ভালো খেলোয়ার তৈরি করতে পারবো।এমনকি তারা একদিন জাতীয় দলে খেলে দেশের জন্য খ্যাতি অর্জন করবে।

এ অবস্থায় সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন,অনতিবিলম্বে উক্ত গ্রামে একটা “খেলার মাঠ” স্থাপনে বাস্তব পদক্ষেপ গ্রহন করে উক্ত গ্রাম ও চারপাশের গ্রামের খেলাধুলার জন্য সরকারি বাজেট থেকে আমাদের গ্রামে একটা “মিনি স্টেডিয়াম” নিশ্চিত করতে উক্ত সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।

নিবেদক,
এলাকাবাসীর পক্ষে,
সৌরভ হোসেন।
গোলক নগর,২ নং মির্জাপুর ইউনিয়ন,
শৈলকুপা,ঝিনাইদহ।

সামাজিক যোগাযোগ এ শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© সকল স্বত্ব www.muktasangbad.com অনলাইন ভার্শন কর্তৃক সংরক্ষিত